NarayanganjToday

শিরোনাম

তারপরও তারা লিখে, নারায়ণগঞ্জে পানি থৈ থৈ করছে : আইভী


তারপরও তারা লিখে, নারায়ণগঞ্জে পানি থৈ থৈ করছে : আইভী

‘দেশ প্রেমের উপরে আর কিছু হতে পারে না’ মন্তব্য করে নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের মেয়র ডা. সেলিনা হায়াৎ আইভী বলেছেন, যার সমর্থ আছে তার যেভাবে হোক যেতে হবে। কিন্তু যার সমর্থন নেই সে কিন্তু যেতে পারে না। এটা হলো ধর্মীয় বিধি বিধান। কিন্তু যার ভেতরে দেশপ্রেম নাই, তারতো ঈমানই নাই।

শনিবার (২০ জুলাই) বিকেলে নগরীর রাসেল পার্কে নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশন আয়োজিত বর্জ্য ব্যবস্থাপনা বিষয়ক গণসচেতনতামূলক প্রচারাভিযান ‘কবি গানের আসর’ এ বক্তব্য রাখতে গিয়ে ওই কথা বলেন তিনি।

প্রতিটি ওয়ার্ডের কাউন্সিলরদের প্রতি অনুরোধ রেখে মেয়র আইভী বলেন, দলমত নির্বিশেষে সবাইকে নিয়ে প্রতিটি ওয়ার্ডেই এই ক্লিন কর্মসূচির কাজটা শুরু করতে হবে। নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের সব কাজ আমাদের একার না। আপনারা যারা আমাদের ভোট দিয়েছেন, ভোট দেওয়ার পর মনে করেন সব দায়দায়িত্ব আমাদের। কিন্তু দায়িত্ব বুঝে নেওয়ার দায়িত্বটাও আপনাদের। আমরা কাজ করলাম কি করলাম না সেটি বুঝে নেওয়ার দায়িত্বটা আপনাদেরই।

যত্রতত্র ময়লা আবর্জনা না ফেলতে নগরবাসীর প্রতি আহ্বান জানিয়ে মেয়র বলেন, যেখানে সেখানে পানি জমিয়ে রাখবেন না। ডেঙ্গু জ্বর ঢাকাতে ভয়াবহ আকার ধারণ করেছে। আমার মনে হয় নারায়ণগঞ্জেও হবে। যে পানি থেকে এডিস মশাটা হচ্ছে, সেদিকে খেয়াল রাখবেন, যথাতথা পানি যেন জমে না থাকে। যাথাস্থানে ময়লা ফেলবেন।

রাস্তাঘাটের যেখানে সেখানে পলিথিন না ফেলার আহ্বান রেখে মেয়র আইভী বলেন, রাস্তায় পলিথিন ফেলার কারণে ড্রেনের মুখগুলো বন্ধ হয়ে যায়। কিছুক্ষণের জন্য হলেও বৃষ্টির পানি জমে যাচ্ছে। খেয়াল করলে দেখবেন, ঢাকা-চট্টগ্রাম কিন্তু ডুবে থাকে ১২-১৩ ঘণ্টা। নারায়ণগঞ্জে কিন্তু ১ ঘণ্টায় পানি চলে যায়। তারপরও আমার সাংবাদিক ভাইয়েরা পত্রপত্রিকায় লিখেন, নারায়ণগঞ্জে  পানি থৈ থৈ করছে। কিন্তু কেন এই পানিটা? রাতে বঙ্গবন্ধু সড়কের যে হকাররা বসে রাতে গিয়ে দেখবেন কি পরিমাণ পলিথিন তারা ফেলছে। কেন ফেলবে? এই শহর আমাদের। আমরা এই শহরকে পরিচ্ছন্ন রাখবো। এটা আমাদের দায়িত্ব।

২০ জুলাই, ২০১৯/এসপি/এনটি

উপরে