NarayanganjToday

শিরোনাম

শামীম ওসমানকে ভয় পাওয়ার কিছু নেই, থ্রেটে নির্বাচন থেকে সরবো না : কাসেমী


শামীম ওসমানকে ভয় পাওয়ার কিছু নেই, থ্রেটে নির্বাচন থেকে সরবো না : কাসেমী

‘শামীম ওসমানকে ভয় পেতে হবে’ এমনটা মনে করেন না মুফতি মনির হোসাইন কাসেমী। সোমবার (২৪ ডিসেম্বর) সন্ধ্যার পর নারায়ণগঞ্জ প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলনে এই মন্তব্য করেন তিনি।

কুতুবপুরের ভূইগড় এলাকায় তাকে লাঞ্ছিত ও হুমকি দেওয়ার অভিযোগ এনে মনির হোসাইন কাসেমী ওই সংবাদ সম্মেলন করেন।

সংবাদ সম্মেলনে তিনি অভিযোগ করে বলেন, আমি মাদানী নগর মাদরাসা থেকে ফিরছিলেন। এসময় তাকে জনৈক ব্যক্তি ফোন দিলে তিনি ভূঁইগড় রূপায়ন টাউনের কাছে গাড়ি থামিয়ে কথা বলছিলেন। এসময় চার পাঁচটা হাইস গাড়ি এসে তার গাড়ির কাছে থামে এবং গাড়ি থেকে ২০ থেকে ২৫ জন ব্যক্তি নেমে আসেন।

কাসেমী বলেন, গাড়ি থেকে আসা লোকদের মধ্যে শাহ নিজাম ছিলেন। তিনি আমাকে এসে বলেন দরজা খুলেন। আমি খুলে দিলাম। তখন তিনি অস্বাভাবিক ভাবে আচরণ করে আমাকে দাম্ভিকতার সাথে বলেন, ‘তুই আধাঘণ্টার মধ্যে নারায়ণগঞ্জ ছাড়বি না হলে তোকে মেরে ফেলবো’ এই কথাটা তিনি সাত আটবার বললেন। তার পাশে থাকা কয়েকজন অস্ত্রও বের করে ফেলেন। এরপরই আরেকজন লোক আমার জামা টেনে গাড়ি থেকে বের করে আনার চেষ্টা করেন। তখন আমি গাড়ি টান দিয়ে সেখান থেকে চলে আসি।

তিনি জানান, একজন মানুষ আমাকে হুমকি দিলেন, থ্রেট করলে আমি নির্বাচন থেকে সরে যাবো, তা মোটেও না। কেউ আমাকে থ্রেট করলেও আমি নির্বাচন থেকে সরে যাবো। যদিও আমি ভীত। তারপরও আমি নির্বাচনে থাকবো।

এছাড়াও কাসেমী সংবাদ সম্মেলনে বলেন, এর আগে জোহরের সময় আমার বড় ভাই মোক্তার হোসেনকে মুসলিমনগর থেকে ফতুল্লা থানা পুলিশের সাদা পোশাকধারীরা তুলে নিয়ে যায়। তাকে ১৪ তারিকের একটি বিস্ফোরণ মামলায় গ্রেফতার দেখিয়ে কোর্টে প্রেরণ করেছেন। আমি এ বিষয়গুলো সেনাবাহিনীকে জানিয়েছে। সেনাবাহিনী আমাকে আগামীকাল (বুধবার) সকাল ৯টায় যেতে বলেছেন।

শামীম ওসমান প্রসঙ্গে কাসেমী বলেন, আমি তার সম্পর্কে খারাপ ধারণা করতে চাই না। আমি তাকে অনেক সম্মানিত মানুষ মনে করি। উনাকে ভয় পেতে হবে বলে আমি মনে করি না।

এদিকে রূপায়ন টাওয়ারে ঘটে যাওয়া ঘটনার পর মনির হোসাইন কাসেমী হুমকি দেওয়ার ঘটনায় শাহ নিজামের পাশাপাশি কাউন্সিলর শওকত হাসেম শকুর উপস্থিতির কথা বলেছিলেন। কিন্তু সংবাদ সম্মেলনে এসে শকুর উপস্থিতির কথা তিনি এড়িয়ে যান এবং বলেন, আমি শকু সাহেবকে চিনি না। আমার সাথে একজন ছিলেন তিনি দেখিয়ে বলেছিলেন উনি শকু।

সংবাদ সম্মেলনে কাসেমীর সাথে আরও উপস্থিত ছিলেন নারায়ণগঞ্জ জেলা বিএনপির সহসভাপতি ব্যারিস্টার পারভেজ আহম্মেদ।

২৪ ডিসেম্বর, ২০১৮/এসপি/এনটি

উপরে