NarayanganjToday

শিরোনাম

শামীম ওসমানের গানম্যান নিয়ে সর্বত্র তোলপাড়, তদন্ত কমিটি গঠন


শামীম ওসমানের গানম্যান নিয়ে সর্বত্র তোলপাড়, তদন্ত কমিটি গঠন

কনস্টেবল মামুনকে বিধি মোতাবেক সাংসদ শামীম ওসমানের ‘গানম্যান’ হিসেবে নিয়োগ দেওয়া হয়েছে। কিন্তু এই কনস্টেবল চাকরিবিধি লঙ্ঘন করে ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের অনুমতি ছাড়াই অস্ত্র নিয়ে সাংসদের ছেলে অয়ন ওসমানের সঙ্গে কক্সবাজারে গিয়েছেন। আর এ নিয়ে গত দুদিন ধরে তুমুল বিতর্ক শুরু হয়েছে খোদ প্রশাসনের মধ্যেই।

সূত্র বলছে কনস্টেবল মামুন ফকির ১৪ থেকে ১৭ মার্চ পর্যন্ত অস্ত্র নিয়ে শামীম ওসমানের ছেলে অয়ন ওসমানের সঙ্গে কক্সবাজারে অবস্থান করেন। যা জানাজানি হলে এবং গণমাধ্যমে এ সক্রান্ত সংবাদ প্রকাশিত হলে তার বিরুদ্ধে তিন সদস্য বিশিষ্ট তদন্ত কমিটিও গঠন করেন নারায়ণগঞ্জ জেলা পুলিশ। এই কমিটি প্রধান করা হয়েছে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর) সুবাস চন্দ্র সাহাকে।

তথ্য সূত্রে জানা গেছে, ২০১৭ সালের ৬ ফেব্রুয়ারিতে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামালের সভাপতিত্বে এক সভায় সিদ্ধান্ত হয়, সাংসদদের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে তাদের নিরাপত্তায় অস্ত্রসহ পুলিশ সদস্য দেওয়া যাবে।

ওই সভাতে এ-ও জানানো হয়, সাংসদেরা শুধু নিজেদের সংসদীয় এলাকায় দেহরক্ষীর নিরাপত্তা পাবেন। নির্বাচনী এলাকার বাইরে চলে গেলে নিরাপত্তায় নিয়োজিত দেহরক্ষী নিজ নিজ ইউনিটে রিপোর্ট করবেন। এই নিরাপত্তা শুধু সাংসদেরা পাবেন। তাদের স্ত্রী, সন্তান বা পরিবারের কেউ পাবেন না।

অথচ প্রভাবশালী এই সাংসদের ছেলে অয়ন ওসমানের ক্ষেত্রে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ওই নির্দেশিকার ব্যত্যয় ঘটিয়েছেন কনস্টেবল মামুন ফকির। শুধু তাই নয়, পুলিশের কয়েকটি সূত্র এমন জানিয়েছেন যে, মামুন ফকির সাংসদের ‘গানম্যান’ হিসেবে নিয়োজিত থাকলেও তাকে প্রায় সময় অয়ন ওসমানের ‘গানম্যান’ হিসেবেই বিভিন্ন স্থানে দেখা গেছে।

এ বিষয়ে জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোহাম্মদ মনিরুল ইসলাম জানিয়েছেন, এই ঘটনায় অতিরিক্ত পুলিশ সুপারকে (সদর) তদন্তের দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। আগামী তিন কর্মদিবসের মধ্যে প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। বিষয়টি তদন্ত সাপেক্ষে বিভাগীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

প্রসঙ্গত, গত বছরের ডিসেম্বরে কনস্টেবল মামুনের বিরুদ্ধে পুলিশের ‘বেতার যন্ত্র’ (ওয়্যারলেস সেট) ব্যবহার করে পুলিশের গতিবিধি ও গোপন তথ্য ফাঁস করার অভিযোগ ওঠেছিলো। তখন বেতারযন্ত্রটি প্রত্যাহার করে নেওয়া হয়। সেসময় ওই ঘটনা নিয়ে ব্যাপক তোলপাড়ও শুরু হয়েছিলো নারায়ণগঞ্জে।

২২ মার্চ, ২০১৯/এসপি/এনটি

উপরে