NarayanganjToday

শিরোনাম

সুফিয়ান-সালামের স্বপ্ন ভঙ্গ রশিদ হলেন নৌকার মাঝি


সুফিয়ান-সালামের স্বপ্ন ভঙ্গ রশিদ হলেন নৌকার মাঝি

অবশেষে সকল জল্পনা কল্পনার অবসান ঘটিয়ে বন্দর উপজেলা নির্বাচনে নৌকার মাঝি হিসেবে এম এ রশিদকে ঘোষণা করা হয়েছে। তিনি বন্দর থানা আওয়ামী লীগের সভাপতি এবং একজন মুক্তিযোদ্ধা।

রোববার (১৯ মে) বিকেলে প্রধামন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকারি বাসভবণ গণভবনে স্থানীয় সরকার নির্বাচনী মনোনয়ন বোর্ড এই ঘোষণা দেন। এই ঘোষণার সাথে সাথে চেয়ারম্যান হওয়ার স্বপ্ন ফিঁকে হয়ে গেছে আবু সুফিয়ান ও এমএ সালামের।

প্রসঙ্গত, গত ৯ মে বন্দর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের তফসিল ঘোষনা করা হয়। ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী আগামী ১৮ জুন নির্বাচনের তারিখ নির্ধারণ করা হয়েছে। এছাড়া মনোনয়ন জমাদানের শেষ তারিখ ২১ মে, যাচাই-বাছাই ২৩ মে, প্রথ্যাহারের শেষ দিন ৩০ মে এবং প্রতিক বরাদ্ধ দেয়া হবে ৩১ মে।

এর আগে জেলা আওয়ামী লীগের শীর্ষ নেতারা এক বৈঠকে জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আবু সুফিয়ান, বন্দর থানা আওয়ামী লীগের সভাপতি এম এ রশিদ এবং মদনপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও আওয়ামী লীগ নেতা এম এ সালামের নাম প্রার্থী তালিকায় বাছাই করে যুক্ত করেন এবং তা কেন্দ্রে পাঠান।  

অপরদিকে সরকারদলীয় ওই তিনজনের বাইরে মাত্র একজন প্রার্থীর নাম শোনা যাচ্ছে। আর তিনি হলেন মহানগর বিএনপির সহ-সভাপতি ও একই উপজেলার বর্তমান চেয়ারম্যান আতাউর রহমান মুকুল। তবে বিএনপি কোন উপজেলা নির্বাচনে অংশ না নিলেও এই প্রার্থী অংশ নেবার কথা রয়েছে। তবে দলীয় প্রার্থী না হয়ে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে লড়বেন তিনি নিজেই ঘোষনা দিয়েছেন।

১৯ মে, ২০১৯/এসপি/এনটি

উপরে