NarayanganjToday

শিরোনাম

আসছে না মহানগর বিএনপির পূর্ণাঙ্গ কমিটি, হচ্ছে পূণর্গঠন!


আসছে না মহানগর বিএনপির পূর্ণাঙ্গ কমিটি, হচ্ছে পূণর্গঠন!

সহসা আর হচ্ছে না নারায়ণগঞ্জ মহানগর বিএনপির পূর্ণাঙ্গ কমিটি। নানা বিতর্কের কারণে এই কমিটি আটকে দেওয়া হয়েছে বহু আগেই। তবে, এর জন্য দলটির সভাপতি অ্যাড. আবুল কালাম ও সাধারণ সম্পাদক এটিএম কামালের অতি রঞ্জিত বাড়াবাড়িকেই দায়ী করা হচ্ছে।

সূত্র বলছে, আংশিক কমিটি পাওয়ার পর থেকে আবুল কালাম ও এটিএম কামাল দুজনের খেয়াল খুশি মতোই চলতে থাকে কমিটির কার্যক্রম। দলীয় কর্মসূচি পালন না করেও ফটোশেন করে তা প্রচার করা, বিরোধ সৃষ্টি করা এবং দলের ত্যাগী নেতাদের অবমূল্যায়ন করার অভিযোগে শেষ পর্যন্ত পূর্ণাঙ্গ কমিটি আটকে দেয় কেন্দ্র।

দলটির একাধিক সূত্র জানায়, প্রকাশ্যে আওয়ামী লীগের সভা সমাবেশে উপস্থিত থাকা এবং নির্বাচনে জোটের প্রার্থীর পক্ষে প্রচারণা না চালিয়ে জাতীয় পার্টির নেতার পক্ষে ভোট চাওয়া এবং একই নেতার পক্ষে কেন্দ্র দখল করা আতাউর রহমান মুকুলকে পূর্ণাঙ্গ কমিটির সভাপতি করা এবং আংশিক কমিটির সিনিয়র সহসভাপতি অ্যাড. সাখাওয়াতকে চারজনের নিচে নামিয়ে সহসভাপতি করাসহ আরও বেশ কিছু অভিযোগের ভিত্তিতে মহানগর বিএনপির পূর্ণাঙ্গ কমিটি স্বাক্ষর করেও তা আটকে দেয় কেন্দ্র।

সূত্র জানায়, ২৭ মার্চ জেলা বিএনপির ২০৫ সদস্য বিশিষ্ট পূর্ণাঙ্গ কমিটি অনুমোদন দেয় কেন্দ্রীয় বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। একই সাথে মহানগর বিএনপির ১৫৫ সদস্য বিশিষ্ট কমিটিও অনুমোদন করা হয়। কিন্তু জেলা বিএনপির কমিটি ঘোষণা করা হলেও আটকে যায় মহানগর কমিটি।

যদিও মহানগর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক এটিএম কামাল দাবি করেছিলেন, ‘তারা কমিটি পাচ্ছেন। কমিটি তাদেরকেই দিবেন।’ কিন্তু দীর্ঘদিন নানা দেনদরবার করার পরও কেন্দ্র থেকে অনুমোদিত পূর্ণাঙ্গ কমিটি তাদের হাতে দেওয়া হয়নি।

এদিকে একটি সূত্র বলছে, মহানগর বিএনপির পূর্ণাঙ্গ কমিটি আর দেওয়া হবে না। তবে, পূণর্গঠন করা হবে এই কমিটি। পরিবর্তন করা হবে বর্তমান দায়িত্বশীলদের। নতুন নেতৃত্ব আসবে নতুন কমিটিতে, এমনই আভাসা পাওয়া যাচ্ছে।

প্রসঙ্গত, সাংবেক সাংসদ অ্যাড. আবুল কালাম, সিনিয়র সহসভাপতি অ্যাড. সাখাওয়াত হোসেন খান এবং এটিএম কামালকে সাধারণ সম্পাদক করে ২০১৭ সালের ১৩ ফেব্রুয়ারি মহানগর বিএনপির ২৩ সদস্য বিশিষ্ট আংশিক কমিটি ঘোষণা করে কেন্দ্র। তিন মাসের মধ্যে পূর্ণাঙ্গ কমিটি গঠন করার জন্য নির্দেশনা দিলেও তা করতে তারা ব্যর্থ হন। শেষত দুই বছর পর পূর্ণাঙ্গ কমিটি কেন্দ্রে জমা দিয়েও সেটি আনতে পারেনি দলটির দায়িত্বশীলরা।

১১ এপ্রিল, ২০১৯/এসপি/এনটি

উপরে